টেকনাফ বাহারছড়ায় সড়ক নয় ,যেন কাদার নদী

 

মোঃ আবছার কবির আকাশ,টেকনাফ[]
টেকনাফ উপজেলার উপকূলীয় ইউনিয়ন বাহড়ছড়া । এই ইউনিয়নের যাতায়তের জন্য সড়ক রয়েছে দুইটি । একটি হচ্ছে মেরিন ড্রাইভ রোড আরেকটি হচ্ছে এলজিআইডি। দুইটি সড়ক দিয়ে বাহড়ছড়া বাজারে ঢুকতে মনে হবে যেন নরকে প্রবেশ। সমান্য বৃষ্টি হলেই রাস্তা গুলো আর রাস্তা থাকে না। হয়ে যাই নর্দমা ও কাঁদা। যান চলাচল ও পায়ে হেটে চলা কঠিন হয়ে পড়ে । স্থানীয় কিছু সচেতন লোক একে সড়ক না বলে কাঁদার নদী বলে সন্মোধন করে । সরেজমিনে দেখা যায়, দীর্ঘদিন সংস্কার কাজ না করায় বাহরছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর বাজারে ত্রি-মূখির আধিকাংশ সড়ক চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ছে ।এই সব সড়ক দিয়ে প্রতিদিন যাতায়ত করে শতশত মানুষ । জনবহুল এই অঞ্চলের একটি মাত্র বাজার । এই বাজার সড়কে গমানগমনের একমাত্র অবলম্বন সড়কটির বেহাল দশায় অনেকটাই স্থবির স্থানীয়দের জীবনযাত্রা । এই সব সড়কে প্রতিনিয়ত দূর্ঘটনার শিকার হচ্ছে স্কুলের শিক্ষার্থী ও বাজারে আসা পথচারীর্।া কেউ কেউ নির্দিষ্ট গনÍব্যে বের হয়ে কাঁদায় নষ্ট হয়ে বাড়িতে ফিওে যেতে বাধ্য হয় । বাহরছড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মৌলভী আজিজ জানান, রাস্তা গর্ত হওয়ার কারনে সড়কের এই অবস্থা আমি সব সময় মেরমাত করার জন্য প্রস্তুত কিন্তু কোন কর্মী তাতে এগিয়ে আসেনা ।

 
 
 

0 মতামত

আপনিই প্রথম এখানে মতামত দিতে পারেন.

 
 

আপনার মতামত দিন