বিয়ে বিষয়টিকে আমি ভয় পাই : জয়া

 

inal-300x169
এই সময়ে দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান। ঢাকা-কলকাতার সিনেমায় সমানতালে অভিনয় করছেন তিনি। কলকাতার ছবি ‘রাজকাহিনী’তে অভিনয় করার পর জোরগুঞ্জন শোনা গিয়েছিল যে নির্মাতা সৃজিত মূখার্জি বিয়ে করতে চাইছেন বাংলাদেশের অভিনেত্রী জয়া আহসানকে। সেসময় বিষয়টি নিয়ে চুপ থাকলেও সম্প্রতি ‘টাইমস অব ইন্ডিয়া’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সে বিষয়ে খোলাখুলি কথা বলেছেন জয়া। ঢালিউডের নায়িকাদের নিয়ে চলচ্চিত্র অঙ্গনে যখন বিয়ের আতঙ্ক চলছে জয়া জানালেন,বিয়ে করে আর কোন নরকে পা দিতে চান না তিনি।
টাইমস অব ইন্ডিয়াকে দেয়া সাক্ষাৎকারে জয়াকে উদ্দেশ্য করে প্রশ্ন করা হয় যে, ‘রাজকাহিনী’র পর টলিউডে জোর গুঞ্জন ছিল এ ছবির নির্মাতা আপনাকে বিয়ে করতে চেয়েছিলেন? এমন প্রশ্নের উত্তরে জয়া বলেন, না, এটা সত্য নয়। বিয়ে নিয়ে আমার পরিকল্পনা কি এটা জানতে চেয়েছিল সৃজিত। অন্যকিছু নয়। সে আমার প্রিয় বন্ধুদের একজন। একটি ফিল্ম ফেস্টিভালে তারসঙ্গে সাক্ষাতের পর আমরা বন্ধু বনে গিয়েছিলাম। আর এর পরেই সে ‘রাজকাহিনী’র চিত্রনাট্য নিয়ে কাজ শুরু করেছিল। আমাদের যোগাযোগটা ছিল শুধুমাত্র দুজন সৃষ্টিশীল মানুষের
এ ছাড়া বিয়ে নিয়ে পূর্ব অভিজ্ঞাতার কথা বলে জয়া বিয়ে ভীতির কথা জানিয়ে সাক্ষাৎকারে বলেন, বিয়ে বিষয়টিকে আমি ভয় পাই। অধিকাংশ নারীরই বিয়ে ভীতি আছে আমি একবার বিয়ে করেছি, কিন্তু তা কোনো কারণে টিকেনি। এর জন্য আমি কাউকে দোষ দিচ্ছি না। কারণ কখনো কখনো দুজন ভালো মানুষও একসঙ্গে সুখি হতে পারে না। তারমানে বিয়ের অভিজ্ঞতা আছে বলে আমি বিয়েকে খারাপ বলছি, এটা কিন্তু না। আসলে বিয়েটা ভালো-মন্দের মিশ্রণই আর আমি জেনেশুনে আবার বিয়ে করার মধ্য দিয়ে সেই নরকে পা দিতে চাই না
প্রসঙ্গত, ‘আবর্ত’ নামের একটি সিনেমা দিয়ে কলকাতায় সিনেমায় অভিষেক ঘটে জয়ার। এরপর ‘একটি বাঙালি ভূতের গপ্পো’ এবং সৃজিতের ‘রাজকাহিনী’ সিনেমায় অভিনয় করে প্রশংসা কুড়ান তিনি। এরইমধ্যে কলকাতায় একটি ত্রিশ মিনিটের শর্টফিল্মেও অভিনয় করেছেন জয়া।

 
 
 

0 মতামত

আপনিই প্রথম এখানে মতামত দিতে পারেন.

 
 

আপনার মতামত দিন