গুলিবিদ্ধ আক্তার কামাল মেম্বারের দাফন সম্পন্ন: স্ত্রীর মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক []
টেকনাফের সাবরাং ইউপির আলীরডেইল গ্রামের বাসিন্দা আক্তার কামাল মেম্বারের লাশ জুমাবার ২৫ মে রাত ১০টায় মুন্ডারডেইল স্কুল মাঠে জানাযার মাধ্যমে দাফন সমপন্ন করা হয়েছে। গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হওয়ার ঘটনায় স্ত্রী জয়নব আক্তার বাদী হয়ে রামু থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।
উল্লেখ্য, কক্সবাজারের হিমছড়ি মেরিনড্রাইভ সড়ক থেকে সাবরাং ইউপি সদস্য আক্তার কামালের (৩৬) গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। শুক্রবার ২৫ মে ভোরে মেরিনড্রাইভ সড়কের দরিয়ানগর ২ নাম্বার ব্রিজ এলাকা থেকে এ লাশটি উদ্ধার করা হয়।
মেরিনড্রাইভ সড়কের হিমছড়ি পুলিশ ফাঁড়ির আইসি পরিদর্শক মনিরুল ইসলাম জানান, ভোরে দরিয়ানগর ব্রিজ এলাকায় গোলাগুলির খবর পেয়ে পুলিশ টহলে যায়। এক পর্যায়ে সেখানে সড়কের পাশে এক ব্যক্তির গুলিবিদ্ধ লাশ দেখতে পায়। লাশের পাশে এক হাজার পিস ইয়াবা, ১টি এলজি এবং ৪ রাউন্ড গুলি ছিল। ঘটনাস্থলে পড়ে থাকা ইয়াবা, বন্দুক ও গুলি উদ্ধার করে পুলিশ। পরে স্থানীয়রা এসে লাশটি টেকনাফের সাবরাং ইউপির আলীরডেইল গ্রামের বাসিন্দা আক্তার কামাল মেম্বারের লাশ বলে সনাক্ত করেন। আক্তার কামাল মেম্বার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত শীর্ষ ইয়াবার গডফাদার বলেও জানান পরিদর্শক মনিরুল ইসলাম। ##

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।