টেকনাফের সাবেক সাংসদ আবদুল গণি আর নেই: জানাযায় মানুষের ঢল

নুরুল হোসাইন, টেকনাফ:
কক্সবাজার-৪ (টেকনাফ-উখিয়া) আসনের সাবেক সাংসদ আলহাজ্ব আবদুল গণি (৯২) ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। জানাযায় মানুষের ঢল নেমেছে।
শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর) সকাল সোয়া সাত টার দিতে তিনি চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন। তিনি মৃত্যু কালে ৮ ছেলে এবং ২ মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন রেখে গেছেন। তবে দীর্ঘ দিন ধরে বার্ধক্য জনিক অচলাবস্থা, খাদ্যনালীতে সমস্যাসহ বিভিন্ন জটিল রোগে ভুগছিলেন।
সে টেকনাফ পৌরসভার কায়ুকখালী পাড়ার বাসিন্দা মৃত আয়ুব আলী চেয়ারম্যানের ছেলে। তিনি র্দীঘদিন ধরে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন ও স্বাধীনতা যুদ্ধের আগে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ছিলেন। তাছাড়া ১৯৮৮ সালে এই আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।
শনিবার এশা নামাজের পর টেকনাফ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে জানাজার নামাজ শেষে পারিবারিক কবর স্থানে দাফন করা হয়েছে।
এই জানাজায় স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আব্দু রহমান বদি, সাবেক সাংসদ অধ্যাপক মোঃ আলী, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাফর আহম্মদ, উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সরোয়ার জাহান চৌধুরী, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলে নেতৃবৃন্দ, গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গসহ হাজারো জনতা অংশ গ্রহন করেন।
এদিকে সাবেক সাংসদ আলহাজ্ব আবদুল গণির মৃত্যুতে গভীর শোক ও পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন টেকনাফ পৌর প্রেস ক্লাব ও টেকনাফ সাংবাদিক ইউনিটির সকল সদস্যদের পক্ষে সভাপতি আব্দুল্লাহ মনির ও সাইফুল ইসলাম সাইফী, সাধান সম্পাদক আব্দুস সালাম ও নূরুল হোসাইন।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।