টেকনাফ পৌর ২ নং ওয়ার্ডের গণসংযোগে জনগণের ব্যাপক সাড়া পাড়চ্ছেন হাফেজ এনাম

তপশিল ঘোষণার পর থেকে মাঠে চষে বেড়াচ্ছেন পৌর ২ নাম্বার ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী হাফেজ এনামুল হাসান।
পুরান পল্লানপাড়া ও উপজেলা পরিষদ এলাকা নিয়ে গঠিত পৌর ২ নাম্বার ওয়ার্ড। এ ওয়ার্ডে গত নির্বাচনে একাধিক কাউন্সিলর প্রার্থী হাফেজ এনামুল হাসান এগিয়ে রয়েছেন।
কাউন্সিলর প্রার্থী হাফেজ এনামুল হাসান ২ নম্বর ওয়ার্ডকে নিরাপদ জোন হিসেবে গড়ে তুলতে চান। তাই প্রতিদিন উঠান বৈঠক, ক্লাব উদ্বোধন করে যাচ্ছেন।

পাশাপাশি তার বক্তব্যে বলেন- আগেই থেকে ওয়ার্ড পরিক্রমা অনুযায়ী একটি উন্নয়ন মুলক মাষ্টারপ্ল্যান ও কার্যকর পদক্ষেপ তৈরি করে রেখেছি । নির্বাচিত হওয়ার পর সেই গুলো পুরোধমে বাস্তবায়ন করবো। বিশেষ করে পরিকল্পিত বাসযোগ্য ও নিরাপদ ওয়ার্ড গড়তে কাজ করবেন তিনি । জলাবদ্ধতা ও বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় নিয়ে আলাদা পরিকল্পনা রয়েছে তার। এই এলাকায় মানুষের চলাচল বেশি হওয়ায় বিশুদ্ধ বায়ুর ওপর চাপ পরে। সবুজ বাগান করার মতো খালি জায়গা নেই। তাই তাঁর ওয়ার্ডের সর্বস্তরের জনগণকে উৎসাহীত করবেন যাতে তাদের প্রত্যকের বাসার বাগান করেন এতে প্রয়োজনীয় হলে তিনি নিজের উদ্যোগ থেকে ও সার্বিক সহযোগিতা করা হবে ।
তিনি বলেন- রাস্তার ওপর কোনো ময়লা ড্রাম থাকবেনা । সড়কে ময়লা ফেলতে দেওয়া হবে না। ওয়ার্ডের সবার বাড়ি বাড়ি ময়লার গাড়ি যাবে । সেখান থেকে ময়লা নিয়ে যাবে। জনগণের কাছ থেকে ব্যাপক হারে সারা পাচ্ছি । বিগত পাঁচ বছর আমি জনগণের সঙ্গে নিবিড়ভাবে মিশেছি, জনগণের সুখে দুঃখে তাদের পাশে ছিলাম। তাই তারা আমাকে ভালোবেসে আবারো প্রার্থী হিসেবে সমর্থন দিচ্ছে এবং সঙ্গে সঙ্গে নিজেকে যুক্ত রেখেছি, ভবিষ্যতেও তাই রাখবো।

এই ওয়ার্ডকে মাদকমুক্ত একটি আধুনিক ওয়ার্ড বানাব। ওয়ার্ডে সিসিটিভি ক্যামেরা স্থাপন করে সিসিটিভি ক্যামেরার আওতায় নিয়ে আসবো।
আরও বলেন – পুনরুজ্জীবিত ২ নম্বর ওয়ার্ডের ঐতিহ্য সংরক্ষণ সৌন্দর্য ও গতিশীলতা বৃদ্ধি এবং সুশাসন ও সমন্বিত উন্নয়নের রপরেখা সুন্দর- সচল- সুশাসিত -উন্নত করার পথে নতুন যাত্রা শুরু করবেন তিনি।
এছাড়া বর্তমান ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য ওয়ার্ডটিকে গতিশীল রাখার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন দুই প্রার্থী। পাশাপাশি অন্যান্য নাগরিক দুর্ভোগ লাঘবের মাধ্যমে দুস্থ, অসহায় ও অদক্ষ পুরুষ মহিলাদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ হিসেবে গড়ে তোলাই হবে মূল লক্ষ্য। এক্ষেত্রে দারিদ্র্য বিমোচন করে সঠিক কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হবে। আর দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনার মাধ্যমে আধুনিক নাগরিক সুবিধা সংবলিত একটি ডিজিটাল ওয়ার্ড গঠন করতে তারা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।

Print Friendly, PDF & Email
শর্টলিংকঃ