টেকনাফ বাহারছড়ার মনির চেয়ারম্যানের জানাযায় মানুষের ঢল

নুরুল হোসাইন, টেকনাফ[]
টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মনির আহম্মদের জানাযায় মানুষের ঢল। উক্ত জানাযায় বক্তব্য রাখলেন উখিয়া- টেকনাফের মাননীয় সাংসদ আলহাজ্ব আব্দুর রহমান বদি, সাবেক সাংসদ ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব অধ্যাপক মোঃ আলী, সাবেক সাংসদ ও জেলা বিএনপির সভাপতি আলহাজ্ব শাহাজাহান চৌধুরী, পৌরসভার মেয়র হাজী মোঃ ইসলাম, সাবেক উপজেলা ভাইচ-চেয়ারম্যান ইউনুছ বাংঙ্গালী, বাহারছড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মৌঃ আজিজ উদ্দীন, টেকনাফ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ শাহাজাহান মিয়া, মনির আহম্মদের বড় ছেলে আজিজ উদ্দিন।
আরো উপস্থিত ছিলেন, টেকনাফ উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিংয়ের সভাপতি ও বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব নুরুল হুদা, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি জহির হোসেন এমএ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি সরওয়ার আলম সহ অত্র এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও প্রমুখ।

কক্সবাজার থেকে আসা পথে মেরিন ড্রাইভ সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালে চিকিৎসারত অবস্থায় শুক্রবার ১৮ মে দুপুর ১২টায় ইন্তেকাল করেছেন সাবেক চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মাস্টার মনির আহমদ।
আলহাজ্ব মাস্টার মনির আহমদ টেকনাফ উপজেলার বাহারছরা ইউনিয়নের ৩ বার নির্বাচিত সাবেক চেয়ারম্যান ও টেকনাফ উপজেলা পরিষদের একাধিকবার ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ছিলেন। তিনি সাদা মনের মানুষ ছিলেন। তাঁর স্বভাব চরিত্র ভাল ছিল। তিনি কোন দিন মানুষের ক্ষতি করে নাই। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৩ বছর। তিনি স্ত্রী রাহামা খাতুন, ১ ছেলে ১০ মেয়ে অসংখ্য গুণগ্রাহী ও আত্মীয় -স্বজন রেখে যান। ১০ জন মেয়ের মধ্যে ১ মেয়ে আগেই ইন্তেকাল করেন। ১৯ মে শনিবার দুপুর ২টায় বাহারছড়া উত্তর শীলখালী তাফহীমুল কুরআন দাখিল কুরআন মাদ্রাসা ময়দানে জানাজার নামাজ অনুষ্টিত হয়।
উল্লেখ্য, গত ১২ মে কক্সবাজার থেকে বাড়ি ফিরছিলেন আলহাজ্ব মাস্টার মনির আহমদ। সন্ধ্যায় কক্সবাজারের হিমছড়ি পেঁচারদ্বীপ নামক স্থানে মগরিবের নামাজ শেষে গাড়ি উঠার জন্য মেরিন ড্রাইভ সড়ক পারাপারের সময় দ্রুতগামী মোটর সাইকেল ধাক্কা দিলে তিনি গুরুতর আহত হন।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।