বাহারছড়ায় মালয়েশিয়াগামী ১১ জন নারী-কিশোরী উদ্ধার


টেকনাফ বাহারছড়া উপকুল হয়ে মালয়েশিয়া গমনের জন্য অবস্থানকালে আবারও ১১ জন নারী-কিশোরীকে আটক করেছে পুলিশ। এর আগে আরও ৮ জন রোহিঙ্গাকে আটক করা হয়েছিল।
বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কর্মকর্তা মোঃ আনোয়ার হোসেন জানান, ‘গোপন সংবাদেও ভিত্তিতে ১৩ মে রাত সাড়ে ৯টার দিকে মালয়েশিয়া গমনের খবর পেয়ে বিশেষ ফোর্স নিয়ে বড় ডেইলের একটি বসত-বাড়ির পার্শ্ববর্তী এলাকা হতে অভিযান চালিয়ে ১১ জন রোহিঙ্গা নারী-কিশোরীকে আটক করা হয়। এরা হচ্ছে কুতুপালং ডি বøকের মৃত আব্দুর রহমানের স্ত্রী নুর বেগম (১৯), জামতলীর রশিদুল্লাহর স্ত্রী মিনারা বেগম (২০), কুতুপালং ডি বøকের মৃত দিল মোহাম্মদের স্ত্রী শুকুরা খাতুন (১৮), আব্দুল হামিদের স্ত্রী সেতেরা বেগম (১৮), জামতলীর ইসহাকের মেয়ে নুর ফাতেমা (১৫), কুতুপালংয়ের হাবিবুর রহমানের স্ত্রী হামিদা খাতুন (৩০), কুতুপালংয়ের হোছন আহমদের মেয়ে ইয়াসমিন ফাতেমা (১২), জামতলীর হারুনের স্ত্রী কুসমিন (৩০), কুতুপালং ক্যাম্পের নুজুমা (১৭), মোচনী ক্যাম্পের ছালামত উল্লাহর মেয়ে জয়নাব বিবি (১৬) এবং থাইংখালী সি-বøকের ফয়েজুলের মেয়ে ছমিদা (২৫)। উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা স্বাপেক্ষে উদ্ধারকৃত ভিকটিমদের ব্যাপারে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। এর আগে গত ১২ মে রাত ১০টার দিকে ডেইলপাড়া এলাকা হতে ৬ জন নারী ও ২ জন পুরুষ মালয়েশিয়াগামীকে আটক করা হয়েছিল’। ##

Print Friendly, PDF & Email
শর্টলিংকঃ