মাদক ও অপহরণ মাত্রা বৃদ্ধি পেয়েছে-ইউএনও টেকনাফ

মোঃ আশেক উল্লাহ ফারুকী,টেকনাফ
টেকনাফ প্রতিনিধি
মাদক, রোহিঙ্গা, গ্রাম আদালত ব্যবস্থা, হোটেল রেস্টুরেন্ট পরিবেশসম্মত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা রাখা, ভেজাল খাদ্য, পাহাড়ধস, চেকপোস্ট যাত্রী ভোগান্তি, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অপরাধ প্রবণতা বৃদ্ধি, টেকনাফ পৌর শহরে রোহিঙ্গাদের অবাধ বসবাস, পর্যটন মৌসুমে সেন্টমার্টিনে ভাঙ্গা জেটি ও প্রাকৃতিক দুর্যোগে ভারী বর্ষণ ও পাহাড়ি ঢলে গ্রামীণ সড়কসহ নাফ নদীর স্লুইস গেইট বিকল সংক্রান্ত বিষয়ে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। ১ সেপ্টেম্বর সকাল ১০ টায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে মাসিক আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার পারভেজ চৌধুরীর সভাপতিত্বে বিষয় নিয়ে গুরুত্ব সহকারে আলোচনা করা হয়। বক্তব্য রাখেন- অনলাইনে সংযুক্ত উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান তাহেরা আকতার মিলি, সেন্টমার্টিন ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহাম্মদ, বাহারছড়া ইউপি চেয়ারম্যান মাওঃ আজিজ উদ্দীন, বিজিবির কোম্পানি কমান্ডার ও উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন, হোয়াইকং ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাওঃ নুর আহমদ আনোয়ারী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মাষ্টার জাহিদ হোসেন, মাদকদ্রব্য অধিদপ্তর ইন্সপেক্টর বিদ্যুৎ বিহারী ও বাহারছড়া ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার মোঃ ইলিয়াস। উপস্থিত ছিলেন- টেকনাফ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ এরফানুল হক, টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডাঃ প্রনয় রুদ্র, টেকনাফ সরকারি ডিগ্রি কলেজের অধ্যাপক কৃষ্ণ মিলন মজুমদার, টেকনাফ এজাহার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শিউলী চৌধুরীসহ সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধিসহ অনেকে। সমাপনী অনুষ্ঠানে সভাপতি উপজেলা নির্বাহী অফিসার পারভেজ চৌধুরী বলেন, সম্প্রতি মাদক রোহিঙ্গা ও অপহরণ মাত্রা বৃদ্ধি পেয়েছে। এ কারণে নানা অপরাধ প্রবণতা বাড়ছে এবং অপরাধ প্রবণতা রোধে জনপ্রতিনিধিসহ সকলের সম্মিলিত প্রয়াস ছাড়া বিকল্প কোন পথ নেই। এ ছাড়া সামনে পর্যটন মৌসুম এ উপলক্ষে সেন্টমার্টিন দ্বীপে জেটির মেরামতসহ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের শীঘ্রই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email
শর্টলিংকঃ